ঢাকা ০৫:০৪ অপরাহ্ন, রবিবার, ২১ জুলাই ২০২৪, ৬ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

নি:শর্ত ক্ষমা চাইলেন সুপ্রিম কোর্টের দুই আইনজীবী

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : ১১:৫৮:১৪ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ৩০ জুন ২০২৪ ২৩ বার পড়া হয়েছে
বাংলা টাইমস অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

অবমাননাকর ভাষা ব্যবহারের অভিযোগে আদালত অবমাননার ঘটনায় আপিল বিভাগে নি:শর্ত ক্ষমা চাইলেন সুপ্রিম কোর্টের দুই আইনজীবী। তারা হলো- আইনজীবী শাহ আহমেদ বাদল ও সমি মহসিন রশিদ।

রোববার (৩০ জুন) প্রধান বিচারপতি ওবায়দুল হাসানের নেতৃত্বে আপিল বিভাগের পূর্ণাঙ্গ বেঞ্চে হাজির হয়ে তারা ক্ষমা প্রার্থনা করেন।

এ সময় আইনজীবী মহসিন রশিদ বলেন, এ ধরনের চিঠি আমরা আর লিখবো না। আমরা মাফ চাচ্ছি।

২০২৩ সালের ২৭ ডিসেম্বর সংবাদ সম্মেলনে ১ থেকে ৭ জানুয়ারি আদালত বর্জনের কর্মসূচি ঘোষণা করে বিএনপিপন্থি আইনজীবীদের সংগঠন জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম। কর্মসূচিতে সংহতি জানিয়ে মোহাম্মদ মহসিন রশিদ ও শাহ আহমেদ বাদল চলতি বছরের ১ জানুয়ারি আদালত বর্জন কর্মসূচি নিয়ে প্রধান বিচারপতির দফতরে চিঠি দেয়। এর পরদিন এই চিঠি প্রধান বিচারপতির দফতরে উপস্থাপন করা হয়।

চিঠিতে বলা হয়েছে, আদালত বর্জন কর্মসূচি চলাকালে মামলা সংশ্লিষ্ট যেসব আইনজীবী শুনানিতে অংশ নিতে আদালতে উপস্থিত থাকতে পারেবন না। সেসব মামলার পরবর্তী কার্যক্রম ৭ জানুয়ারি পর্যন্ত স্থগিত করা হোক। সংশ্লিষ্ট আইনজীবীদের অনুপস্থিতে মামলা খারিজ করে দেয়া উচিত হবে না।

এ চিঠি নিয়ে দেয়া আপিল বিভাগের আদেশে বলা হয়, চিঠিতে কিছু অবমাননাকর বিবৃতি রয়েছে। যা প্রাথমিকভাবে রাষ্ট্রবিরোধী এবং সামগ্রিকভাবে বিচার বিভাগের ভাবমূর্তি, অবস্থান এবং মর্যাদার প্রতি অবমাননাকর।

এরপর গত ৩ জানুয়ারি এই দুই আইনজীবীকে হাজির হতে বলা হয়। একই সাথে তাদের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার অভিযোগে কেন আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে না, তা ব্যাখ্যা দিতে বলা হয়। আদেশ অনুযায়ী ১১ জানুয়ারি আপিল বিভাগে হাজির হন।

এরপর ১১ জানুয়ারি তাদেরপক্ষে সময় আবেদন করলে আদালত ব্যাখ্যা দিতে দুই আইনজীবীকে ৪ সপ্তাহ সময় দেন। এ সময়ে তারা সুপ্রিম কোর্টে কোনো মামলা পরিচালনা করতে পারবেন না বলে আদেশ দেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :

নি:শর্ত ক্ষমা চাইলেন সুপ্রিম কোর্টের দুই আইনজীবী

সংবাদ প্রকাশের সময় : ১১:৫৮:১৪ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ৩০ জুন ২০২৪

অবমাননাকর ভাষা ব্যবহারের অভিযোগে আদালত অবমাননার ঘটনায় আপিল বিভাগে নি:শর্ত ক্ষমা চাইলেন সুপ্রিম কোর্টের দুই আইনজীবী। তারা হলো- আইনজীবী শাহ আহমেদ বাদল ও সমি মহসিন রশিদ।

রোববার (৩০ জুন) প্রধান বিচারপতি ওবায়দুল হাসানের নেতৃত্বে আপিল বিভাগের পূর্ণাঙ্গ বেঞ্চে হাজির হয়ে তারা ক্ষমা প্রার্থনা করেন।

এ সময় আইনজীবী মহসিন রশিদ বলেন, এ ধরনের চিঠি আমরা আর লিখবো না। আমরা মাফ চাচ্ছি।

২০২৩ সালের ২৭ ডিসেম্বর সংবাদ সম্মেলনে ১ থেকে ৭ জানুয়ারি আদালত বর্জনের কর্মসূচি ঘোষণা করে বিএনপিপন্থি আইনজীবীদের সংগঠন জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম। কর্মসূচিতে সংহতি জানিয়ে মোহাম্মদ মহসিন রশিদ ও শাহ আহমেদ বাদল চলতি বছরের ১ জানুয়ারি আদালত বর্জন কর্মসূচি নিয়ে প্রধান বিচারপতির দফতরে চিঠি দেয়। এর পরদিন এই চিঠি প্রধান বিচারপতির দফতরে উপস্থাপন করা হয়।

চিঠিতে বলা হয়েছে, আদালত বর্জন কর্মসূচি চলাকালে মামলা সংশ্লিষ্ট যেসব আইনজীবী শুনানিতে অংশ নিতে আদালতে উপস্থিত থাকতে পারেবন না। সেসব মামলার পরবর্তী কার্যক্রম ৭ জানুয়ারি পর্যন্ত স্থগিত করা হোক। সংশ্লিষ্ট আইনজীবীদের অনুপস্থিতে মামলা খারিজ করে দেয়া উচিত হবে না।

এ চিঠি নিয়ে দেয়া আপিল বিভাগের আদেশে বলা হয়, চিঠিতে কিছু অবমাননাকর বিবৃতি রয়েছে। যা প্রাথমিকভাবে রাষ্ট্রবিরোধী এবং সামগ্রিকভাবে বিচার বিভাগের ভাবমূর্তি, অবস্থান এবং মর্যাদার প্রতি অবমাননাকর।

এরপর গত ৩ জানুয়ারি এই দুই আইনজীবীকে হাজির হতে বলা হয়। একই সাথে তাদের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার অভিযোগে কেন আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে না, তা ব্যাখ্যা দিতে বলা হয়। আদেশ অনুযায়ী ১১ জানুয়ারি আপিল বিভাগে হাজির হন।

এরপর ১১ জানুয়ারি তাদেরপক্ষে সময় আবেদন করলে আদালত ব্যাখ্যা দিতে দুই আইনজীবীকে ৪ সপ্তাহ সময় দেন। এ সময়ে তারা সুপ্রিম কোর্টে কোনো মামলা পরিচালনা করতে পারবেন না বলে আদেশ দেন।