ঢাকা ১২:৫৭ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০২৪, ৩ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

জরিমানার কবলে তানজিম সাকিব

ক্রীড়া প্রতিবেদক
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : ০৯:৪৪:০৪ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৯ জুন ২০২৪ ৪২ বার পড়া হয়েছে
বাংলা টাইমস অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

আচরণবিধি লঙ্ঘনের অভিযোগে জরিমানার কবলে বাংলাদেশি পেসার তানজিম হাসান সাকিব। জরিমানা হিসেবে তাকে ম্যাচ ফির ১৫ শতাংশ গুনতে হবে। মঙ্গলবার (১৮ জুন) এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানায় আইসিসি।

নেপালের বিপক্ষে বোলিং করার সময় ঘটনার জের ধরে এই জরিমানার স্বীকার হলেন সাকিব। ওই সময় স্ট্রাইকে নেপাল অধিনায়ক রোহিত পৌড়েল। তৃতীয় ওভারের শেষ বল করলেন জুনিয়র সাকিব। তানজিমের বল ডিফেন্ড করলেন রোহিত। এরপর রোহিতের সাথে এক দফা উত্তপ্ত বাক্য বিনিময় করতে দেখা যায় বাংলাদেশের পেসারকে।

এরপর পরিস্থিতি শান্ত করতে ছুটে আসেন নন-স্ট্রাইকে থাকা ব্যাটার আসিফ শেখ। ছুটে আসেন আম্পায়ার স্যাম নোগাসকিও। দু’জনের মধ্যে এমন ‘কথা-ঝড়’-এর কারণ তখন বোঝা যাচ্ছিল না।

আইসিসি জানায়, তানজিম সাকিব আইসিসির কোড অফ কন্ডাক্টের ২.২১ ধারাটি লঙ্ঘন করেছে। যা খেলোয়াড়, আম্পায়ার, প্লেয়ার সাপোর্ট পার্সোনাল, ম্যাচ রেফারি বা অন্য কোন ব্যক্তির সাথে অনুপযুক্ত শারীরিক যোগাযোগের সাথে সম্পর্কিত।

আইসিসি আরও জানায়, ম্যাচের পর আম্পায়ার আহসান রাজা, স্যাম নোগাজস্কি, তৃতীয় আম্পায়ার জয়রামন মদনগোপাল এবং চতুর্থ আম্পায়ার কুমার ধর্মসেনা এই বিষয়ে অভিযোগ তুলেছেন। তানজিম তার অপরাধ স্বীকার করেছে। তাই আনুষ্ঠানিক শুনানির প্রয়োজন হয়নি।

উল্লেখ্য, নেপালের বিপক্ষে ম্যাচটিতে চার ওভারে সাত রানের খরচায় ৪ উইকেট তুলে নেন তানজিম সাকিব। এরমধ্যে টানা ১৭টি বল ডট দেন। ২৪ বলের মধ্যে মোট ডট বল করেন ২১টি। গড়ে ওভারপ্রতি ১ দশমিক ৮০ হারে রান দেন।

বিশ্বকাপের সুপার এইট পর্বে আগামী ২১ জুন অ্যান্টিগায় অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে মাঠে নামবে বাংলাদেশ।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :

জরিমানার কবলে তানজিম সাকিব

সংবাদ প্রকাশের সময় : ০৯:৪৪:০৪ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৯ জুন ২০২৪

আচরণবিধি লঙ্ঘনের অভিযোগে জরিমানার কবলে বাংলাদেশি পেসার তানজিম হাসান সাকিব। জরিমানা হিসেবে তাকে ম্যাচ ফির ১৫ শতাংশ গুনতে হবে। মঙ্গলবার (১৮ জুন) এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানায় আইসিসি।

নেপালের বিপক্ষে বোলিং করার সময় ঘটনার জের ধরে এই জরিমানার স্বীকার হলেন সাকিব। ওই সময় স্ট্রাইকে নেপাল অধিনায়ক রোহিত পৌড়েল। তৃতীয় ওভারের শেষ বল করলেন জুনিয়র সাকিব। তানজিমের বল ডিফেন্ড করলেন রোহিত। এরপর রোহিতের সাথে এক দফা উত্তপ্ত বাক্য বিনিময় করতে দেখা যায় বাংলাদেশের পেসারকে।

এরপর পরিস্থিতি শান্ত করতে ছুটে আসেন নন-স্ট্রাইকে থাকা ব্যাটার আসিফ শেখ। ছুটে আসেন আম্পায়ার স্যাম নোগাসকিও। দু’জনের মধ্যে এমন ‘কথা-ঝড়’-এর কারণ তখন বোঝা যাচ্ছিল না।

আইসিসি জানায়, তানজিম সাকিব আইসিসির কোড অফ কন্ডাক্টের ২.২১ ধারাটি লঙ্ঘন করেছে। যা খেলোয়াড়, আম্পায়ার, প্লেয়ার সাপোর্ট পার্সোনাল, ম্যাচ রেফারি বা অন্য কোন ব্যক্তির সাথে অনুপযুক্ত শারীরিক যোগাযোগের সাথে সম্পর্কিত।

আইসিসি আরও জানায়, ম্যাচের পর আম্পায়ার আহসান রাজা, স্যাম নোগাজস্কি, তৃতীয় আম্পায়ার জয়রামন মদনগোপাল এবং চতুর্থ আম্পায়ার কুমার ধর্মসেনা এই বিষয়ে অভিযোগ তুলেছেন। তানজিম তার অপরাধ স্বীকার করেছে। তাই আনুষ্ঠানিক শুনানির প্রয়োজন হয়নি।

উল্লেখ্য, নেপালের বিপক্ষে ম্যাচটিতে চার ওভারে সাত রানের খরচায় ৪ উইকেট তুলে নেন তানজিম সাকিব। এরমধ্যে টানা ১৭টি বল ডট দেন। ২৪ বলের মধ্যে মোট ডট বল করেন ২১টি। গড়ে ওভারপ্রতি ১ দশমিক ৮০ হারে রান দেন।

বিশ্বকাপের সুপার এইট পর্বে আগামী ২১ জুন অ্যান্টিগায় অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে মাঠে নামবে বাংলাদেশ।