ঢাকা ০৩:৩৬ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২০ জুলাই ২০২৪, ৪ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মহাসড়কে যানবাহন চলাচল স্বাভাবিক

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : ০৭:১৭:৪৬ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪ ২৮ বার পড়া হয়েছে
বাংলা টাইমস অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

নাড়ির টানে বাড়ি ফিরছেন সারা দেশের ন্যায় উত্তরবঙ্গের ঘরমুখো মানুষ। শনিবার (১৫ জুন) সকালে ঢাকা-টাঙ্গাইল ও বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কে অতিরিক্ত যানবাহনের চাপ বাড়তে থাকে। এছাড়াও সেতুর উপর গাড়ি বিকল হওয়ায় ও বঙ্গবন্ধু সেতুর টোল আদায় বন্ধ থাকায় টাঙ্গাইল মহাসড়কে বঙ্গবন্ধু সেতু পূর্ব এলাকা থেকে কালিহাতীর উপজেলার সল্লা পর্যন্ত ৭ কিলোমিটার এলাকাজুড়ে থেমে থেমে যানজট সৃষ্টি হয়। এতে চরম ভোগান্তিতে পড়েন চালক ও যাত্রীরা।

বিশেষ করে নারী ও শিশুরা বেশি ভোগান্তির শিকার হন। তবে শনিবার (১৫ জুন) বেলা সাড়ে ১১টার পর থেকে ঢাকা-টাঙ্গাইল ও বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কে যানবাহন চলাচল স্বাভাবিক হয়।

এদিকে, বাড়তি ভাড়ার চাপ এবং যানবাহন স্বল্পতার কারণে অনেক যাত্রী জীবনের ঝুঁকি নিয়ে পিকআপ ভ্যান, ট্রাকের খোলা ছাদে ও বাসের ছাদে করে বাড়ি যাচ্ছেন। মহাসড়কের নিরাপত্তায় নিয়োজিত আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় জেলা ও হাইওয়ে পুলিশ কাজ করছে। যাত্রীদের ঈদযাত্রা নির্বিঘ্ন করতে কাজ করছেন বলে জানিয়েছেন পুলিশ সদস্যরা।

উত্তরবঙ্গগামী পিকআপ চালক কাদের মোল্লা বলেন, চন্দ্রা থেকে যাত্রী নিয়ে বগুড়া পর্যন্ত যাবো। বাস ভাড়া দ্বিগুণ নিচ্ছে। সেজন্য ঘরমুখো মানুষের কথা চিন্তা করে কম টাকায় তাদের নিরাপদে বাড়ি ফিরিয়ে দিচ্ছি।

এলেঙ্গা হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ (ওসি) মীর সাজেদুর রহমান জানান, যানবাহন চালকদের বেপরোয়া গতিতে গাড়ি চালানোর ফলে মহাসড়কে যানজটের সৃষ্টি হয়। যানজট নিরসনে মহাসড়‌কে পুলিশ কাজ করছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :

মহাসড়কে যানবাহন চলাচল স্বাভাবিক

সংবাদ প্রকাশের সময় : ০৭:১৭:৪৬ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪

নাড়ির টানে বাড়ি ফিরছেন সারা দেশের ন্যায় উত্তরবঙ্গের ঘরমুখো মানুষ। শনিবার (১৫ জুন) সকালে ঢাকা-টাঙ্গাইল ও বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কে অতিরিক্ত যানবাহনের চাপ বাড়তে থাকে। এছাড়াও সেতুর উপর গাড়ি বিকল হওয়ায় ও বঙ্গবন্ধু সেতুর টোল আদায় বন্ধ থাকায় টাঙ্গাইল মহাসড়কে বঙ্গবন্ধু সেতু পূর্ব এলাকা থেকে কালিহাতীর উপজেলার সল্লা পর্যন্ত ৭ কিলোমিটার এলাকাজুড়ে থেমে থেমে যানজট সৃষ্টি হয়। এতে চরম ভোগান্তিতে পড়েন চালক ও যাত্রীরা।

বিশেষ করে নারী ও শিশুরা বেশি ভোগান্তির শিকার হন। তবে শনিবার (১৫ জুন) বেলা সাড়ে ১১টার পর থেকে ঢাকা-টাঙ্গাইল ও বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কে যানবাহন চলাচল স্বাভাবিক হয়।

এদিকে, বাড়তি ভাড়ার চাপ এবং যানবাহন স্বল্পতার কারণে অনেক যাত্রী জীবনের ঝুঁকি নিয়ে পিকআপ ভ্যান, ট্রাকের খোলা ছাদে ও বাসের ছাদে করে বাড়ি যাচ্ছেন। মহাসড়কের নিরাপত্তায় নিয়োজিত আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় জেলা ও হাইওয়ে পুলিশ কাজ করছে। যাত্রীদের ঈদযাত্রা নির্বিঘ্ন করতে কাজ করছেন বলে জানিয়েছেন পুলিশ সদস্যরা।

উত্তরবঙ্গগামী পিকআপ চালক কাদের মোল্লা বলেন, চন্দ্রা থেকে যাত্রী নিয়ে বগুড়া পর্যন্ত যাবো। বাস ভাড়া দ্বিগুণ নিচ্ছে। সেজন্য ঘরমুখো মানুষের কথা চিন্তা করে কম টাকায় তাদের নিরাপদে বাড়ি ফিরিয়ে দিচ্ছি।

এলেঙ্গা হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ (ওসি) মীর সাজেদুর রহমান জানান, যানবাহন চালকদের বেপরোয়া গতিতে গাড়ি চালানোর ফলে মহাসড়কে যানজটের সৃষ্টি হয়। যানজট নিরসনে মহাসড়‌কে পুলিশ কাজ করছে।