ঢাকা ০৯:২২ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪, ২৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মৎস দপ্তরের ছাগল বিতরণে অনিয়ম, চেয়ারম্যানের হস্তক্ষেপে বিতরণ স্থগিত

ঝালকাঠি প্রতিনিধি
  • আপডেট সময় : ০৩:২৭:১৯ অপরাহ্ন, রবিবার, ৭ জুলাই ২০২৪ ১৩ বার পড়া হয়েছে
বাংলা টাইমস অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

ঝালকাঠির নলছিটিতে জেলেদের মধ্যে ছাগল বিতরনে অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে।অভিযোগ পেয়ে তাৎক্ষনিকভাবে বিতরণ স্থগিত করে দিয়েছেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান।

৭ জুলাই রবিবার ২০ জন জেলের মাঝে ৪০ টি ছাগল বিতরনের জন্য আনে উপজেলা মৎস বিভাগ।জানা যায় বিতরনের জন্য আনা ছাগল ট্রাক থেকে নামানোর সময় এবং নামানোর পরে জেলেরা দেখতে পান সরবরাহকৃত ছাগলের মধ্যে কিছু বড় আকারের ছাগল থাকলেও বেশ কিছু ছাগল আকারে খুবই ছোট।এ বিষয়ে তারা উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যানকে জানালে তিনি নিজেই তা দেখতে যান।এবং ছাগলের আকারে অনিয়মের অভিযোগে তা বিতরন কার্যক্রম স্থগিত করে দেন এবং সরকারি নিয়ম মোতাবেক ছাগল সরবরাহের নির্দেশনা দেন।এতে ছাগল না নিয়েই ফেরত যান জেলেরা।

এ বিষয়ে নলছিটি উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান সালাহউদ্দিন খান সেলিম বলেন,উপজেলার কোনো দপ্তরের অনিয়ম দুর্নিতী প্রশ্রয় দেয়া হবে না।দুর্নীতির বিরুদ্ধে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার জিরো টলারেন্স নীতি অনুসরণ করেই উপজেলার সকল দপ্তরের সেবা নিশ্চিতে আমরা কাজ শুরু করেছি।এরই ধারাবাহিকতায় জেলেদের মাঝে বিতরনের জন্য আনা ছাগলের আকারে অনিয়মের অভিযোগ থাকায় তাৎক্ষনিকভাবে তা বিতরণ স্থগিত করা হয়েছে।

এবং এ বিষয়ে বিস্তারিত খোজ খবর নিয়ে তদন্ত করে যদি অনিয়ম এবং দুর্নিতীর প্রমান পাওয়া যায় তাহলে তাদের বিরুদ্ধে বিধি মোতাবেক ব্যবস্থা গ্রহনের সুপারিশ করা হবে।তিনি আরও বলেন অনেক সময় আমরা তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ পেয়েছি জেলেদের জন্য সরবরাহ করা এসব গবাদি পশু ঠিকাদারদের নাম ব্যবহার করে কর্মকর্তারাই এসব বানিজ্যের সাথে জড়িত থাকেন।কোনো প্রকার দুর্নীতি এখানে বরদাশত করা হবে না।

এ বিষয়ে উপজেলা মৎস কর্মকর্তা রমনী কুমার মিস্ত্রী বলেন,ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান ছাগল সরবরাহ করেছে।বিধি মোতাবেক প্রতি দুইটি ছাগলের ওজন চৌদ্দ কেজি থাকার কথা। এখানে কিছু ছাগলের ওজন দশ কেজির উপরেও আছে তবে আট কেজির নিচে নেই।তবে বৃষ্টিতে ভেজার কারনে হয়তো আকারে ছোট দেখাতে পারে।বিতরনের জন্য আসা ছাগল ফেরত পাঠানো হয়েছে এবং ঠিকাদারকে সমান আকারের সঠিক ওজনের ছাগল সরবরাহ করার জন্য বলা হয়েছে।

ফের ছাগল সরবরাহ করা হলে খুব শীগ্রই তা বিতরন করা হবে বলেও জানান তিনি।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :

মৎস দপ্তরের ছাগল বিতরণে অনিয়ম, চেয়ারম্যানের হস্তক্ষেপে বিতরণ স্থগিত

আপডেট সময় : ০৩:২৭:১৯ অপরাহ্ন, রবিবার, ৭ জুলাই ২০২৪

ঝালকাঠির নলছিটিতে জেলেদের মধ্যে ছাগল বিতরনে অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে।অভিযোগ পেয়ে তাৎক্ষনিকভাবে বিতরণ স্থগিত করে দিয়েছেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান।

৭ জুলাই রবিবার ২০ জন জেলের মাঝে ৪০ টি ছাগল বিতরনের জন্য আনে উপজেলা মৎস বিভাগ।জানা যায় বিতরনের জন্য আনা ছাগল ট্রাক থেকে নামানোর সময় এবং নামানোর পরে জেলেরা দেখতে পান সরবরাহকৃত ছাগলের মধ্যে কিছু বড় আকারের ছাগল থাকলেও বেশ কিছু ছাগল আকারে খুবই ছোট।এ বিষয়ে তারা উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যানকে জানালে তিনি নিজেই তা দেখতে যান।এবং ছাগলের আকারে অনিয়মের অভিযোগে তা বিতরন কার্যক্রম স্থগিত করে দেন এবং সরকারি নিয়ম মোতাবেক ছাগল সরবরাহের নির্দেশনা দেন।এতে ছাগল না নিয়েই ফেরত যান জেলেরা।

এ বিষয়ে নলছিটি উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান সালাহউদ্দিন খান সেলিম বলেন,উপজেলার কোনো দপ্তরের অনিয়ম দুর্নিতী প্রশ্রয় দেয়া হবে না।দুর্নীতির বিরুদ্ধে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার জিরো টলারেন্স নীতি অনুসরণ করেই উপজেলার সকল দপ্তরের সেবা নিশ্চিতে আমরা কাজ শুরু করেছি।এরই ধারাবাহিকতায় জেলেদের মাঝে বিতরনের জন্য আনা ছাগলের আকারে অনিয়মের অভিযোগ থাকায় তাৎক্ষনিকভাবে তা বিতরণ স্থগিত করা হয়েছে।

এবং এ বিষয়ে বিস্তারিত খোজ খবর নিয়ে তদন্ত করে যদি অনিয়ম এবং দুর্নিতীর প্রমান পাওয়া যায় তাহলে তাদের বিরুদ্ধে বিধি মোতাবেক ব্যবস্থা গ্রহনের সুপারিশ করা হবে।তিনি আরও বলেন অনেক সময় আমরা তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ পেয়েছি জেলেদের জন্য সরবরাহ করা এসব গবাদি পশু ঠিকাদারদের নাম ব্যবহার করে কর্মকর্তারাই এসব বানিজ্যের সাথে জড়িত থাকেন।কোনো প্রকার দুর্নীতি এখানে বরদাশত করা হবে না।

এ বিষয়ে উপজেলা মৎস কর্মকর্তা রমনী কুমার মিস্ত্রী বলেন,ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান ছাগল সরবরাহ করেছে।বিধি মোতাবেক প্রতি দুইটি ছাগলের ওজন চৌদ্দ কেজি থাকার কথা। এখানে কিছু ছাগলের ওজন দশ কেজির উপরেও আছে তবে আট কেজির নিচে নেই।তবে বৃষ্টিতে ভেজার কারনে হয়তো আকারে ছোট দেখাতে পারে।বিতরনের জন্য আসা ছাগল ফেরত পাঠানো হয়েছে এবং ঠিকাদারকে সমান আকারের সঠিক ওজনের ছাগল সরবরাহ করার জন্য বলা হয়েছে।

ফের ছাগল সরবরাহ করা হলে খুব শীগ্রই তা বিতরন করা হবে বলেও জানান তিনি।