ঢাকা ১১:০৮ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২১ জুলাই ২০২৪, ৬ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ব্রিটেনের নতুন মন্ত্রিসভার দপ্তর বন্টন

বাংলা টাইমস ডেস্ক
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : ১২:০২:৫৯ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ৬ জুলাই ২০২৪ ২৯ বার পড়া হয়েছে
বাংলা টাইমস অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

যুক্তরাজ্যের সাধারণ নির্বাচনে নিরঙ্কুশ জয় পেয়ে ভোটের পরদিনই মন্ত্রিসভা গঠনের কার্যক্রম শুরু করেছে লেবার পার্টি। প্রধানমন্ত্রী হিসেবে আগেই ঘোষণা করা হয় কিয়ের স্টারমারের নাম। শুক্রবার (৫ জুলাই) রাজা চার্লসের সাথে সাক্ষাৎ করে প্রধানমন্ত্রীর পদ থেকে সরে দাঁড়িয়েছেন ঋষি সুনাক।

তারপর রাজার সাথে দেখা করেন কিয়ার স্টারমার। বাকিংহাম প্যালেস থেকে ফিরেই মন্ত্রিসভা গঠনের কাজ শুরু করে দেন নতুন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী কিয়ার স্টারমার। এরমধ্যে বেশ কয়েকজনের নাম ঘোষণা করা হয়। লেবার এমপি অ্যাঞ্জেলা রেনারকে নিয়োগ দেয়া হয়েছে উপপ্রধানমন্ত্রী হিসেবে।

নতুন মন্ত্রীসভায় পররাষ্ট্রমন্ত্রীর দায়িত্ব পেয়েছেন ডেভিড ল্যামি। অর্থমন্ত্রীর দায়িত্বে র‍্যাচেল রিভস। জ্বালানিমন্ত্রীর দায়িত্ব দেয়া হয়ে এড মিলিব্যান্ডকে। এছাড়া শিক্ষা ও স্বাস্থ্য দপ্তরের দায়িত্ব পেয়েছেন ব্রিজিত ফিলিপসন ও ওয়েস স্টিটিং।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর দায়িত্ব দেয়া হয়েছে ইয়েভেট কুপার। আর প্রতিরক্ষামন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পেয়েছেন জন হিলি। শাবানা মাহমুদ দেশটির বিচারমন্ত্রী। প্রতিরক্ষামন্ত্রী করা হয় জন হিলিকে।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী করা হয়েছে ইয়েভেট কুপারকে। জোনাথন রেনল্ডস পেয়েছেন বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বে। পিটার কাইল বিজ্ঞান, উদ্ভাবন ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়। লুইস হাইকে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে পরিবহন মন্ত্রণালয়ের। লিজ কেন্ডালকে করা হয়েছে কর্ম ও পেনশন বিষয়ক মন্ত্রী।

প্রসঙ্গত, ৪ জুলাই যুক্তরাজ্যে অনুষ্ঠিতব্য নির্বাচনে লেবার পার্টি ৬৫০ আসনের মধ্যে ৪১২টি আসনে জয় পেয়েছে। আর কনজারভেটিভ পার্টি পেয়েছে ১২১টি আসন। দেশটির নিম্নকক্ষ আইনসভা হাউস অব কমন্সে একক সংখ্যাগরিষ্ঠতার জন্য প্রয়োজন হয় ৩২৬টি আসন।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :

ব্রিটেনের নতুন মন্ত্রিসভার দপ্তর বন্টন

সংবাদ প্রকাশের সময় : ১২:০২:৫৯ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ৬ জুলাই ২০২৪

যুক্তরাজ্যের সাধারণ নির্বাচনে নিরঙ্কুশ জয় পেয়ে ভোটের পরদিনই মন্ত্রিসভা গঠনের কার্যক্রম শুরু করেছে লেবার পার্টি। প্রধানমন্ত্রী হিসেবে আগেই ঘোষণা করা হয় কিয়ের স্টারমারের নাম। শুক্রবার (৫ জুলাই) রাজা চার্লসের সাথে সাক্ষাৎ করে প্রধানমন্ত্রীর পদ থেকে সরে দাঁড়িয়েছেন ঋষি সুনাক।

তারপর রাজার সাথে দেখা করেন কিয়ার স্টারমার। বাকিংহাম প্যালেস থেকে ফিরেই মন্ত্রিসভা গঠনের কাজ শুরু করে দেন নতুন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী কিয়ার স্টারমার। এরমধ্যে বেশ কয়েকজনের নাম ঘোষণা করা হয়। লেবার এমপি অ্যাঞ্জেলা রেনারকে নিয়োগ দেয়া হয়েছে উপপ্রধানমন্ত্রী হিসেবে।

নতুন মন্ত্রীসভায় পররাষ্ট্রমন্ত্রীর দায়িত্ব পেয়েছেন ডেভিড ল্যামি। অর্থমন্ত্রীর দায়িত্বে র‍্যাচেল রিভস। জ্বালানিমন্ত্রীর দায়িত্ব দেয়া হয়ে এড মিলিব্যান্ডকে। এছাড়া শিক্ষা ও স্বাস্থ্য দপ্তরের দায়িত্ব পেয়েছেন ব্রিজিত ফিলিপসন ও ওয়েস স্টিটিং।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর দায়িত্ব দেয়া হয়েছে ইয়েভেট কুপার। আর প্রতিরক্ষামন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পেয়েছেন জন হিলি। শাবানা মাহমুদ দেশটির বিচারমন্ত্রী। প্রতিরক্ষামন্ত্রী করা হয় জন হিলিকে।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী করা হয়েছে ইয়েভেট কুপারকে। জোনাথন রেনল্ডস পেয়েছেন বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বে। পিটার কাইল বিজ্ঞান, উদ্ভাবন ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়। লুইস হাইকে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে পরিবহন মন্ত্রণালয়ের। লিজ কেন্ডালকে করা হয়েছে কর্ম ও পেনশন বিষয়ক মন্ত্রী।

প্রসঙ্গত, ৪ জুলাই যুক্তরাজ্যে অনুষ্ঠিতব্য নির্বাচনে লেবার পার্টি ৬৫০ আসনের মধ্যে ৪১২টি আসনে জয় পেয়েছে। আর কনজারভেটিভ পার্টি পেয়েছে ১২১টি আসন। দেশটির নিম্নকক্ষ আইনসভা হাউস অব কমন্সে একক সংখ্যাগরিষ্ঠতার জন্য প্রয়োজন হয় ৩২৬টি আসন।