https://bangla-times.com/
ঢাকামঙ্গলবার , ১৯ মার্চ ২০২৪

‘সাকিব বিএনএমে যোগ দিতে চেয়েছিল’

নিজস্ব প্রতিবেদক
মার্চ ১৯, ২০২৪ ১:৫৫ অপরাহ্ণ । ১০৭ জন
Link Copied!

বিতর্ক পিছু ছাড়ছে না সাকিব আল হাসানের। গত সপ্তাহে অভিযোগ ওঠে- ভারতে অনলাইন জুয়ায় সাকিবের বোন জান্নাতুলের বিনিয়োগ রয়েছে। এর রেশ কাটতে না কাটতেই নতুন সংবাদ, সাকিব কিংস পার্টি নামে পরিচিত বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী আন্দোলনে (বিএনএম) যোগ দিয়েছিলেন।

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পাওয়ার আগে তিনি ওই দলে যোগ দিয়েছিলেন। দলের কো-চেয়ারম্যান হিসেবেও দায়িত্ব নিতে চেয়েছিলেন। সেজন্য তিনি বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান মেজর (অব.) হাফিজ উদ্দিন আহমেদের সাথে সাক্ষাতও করেন।

বিএনএমে সাকিব ও মেজর হাফিজের যোগদান নিয়ে মুখ খুলেছেন হাফিজ নিজেই। বনানীর নিজ বাসায় মঙ্গলবার (১৯ মার্চ) সংবাদ সম্মেলন করেন মেজর হাফিজ।

এ সময় তিনি জানান, সাকিব বিএনএমে যোগ দিতে তার সাথে সাক্ষাত করেছিলেন। সাকিব আমার কাছে এসে রাজনীতিতে যোগদানের ইচ্ছা ব্যক্ত করেছিল। তাকে বিএনএমের দুইজন কর্মকর্তা নিয়ে এসেছিল। আমি বলেছি রাজনীতি করা তোমার বিষয়। তুমি এখনও খেলাধুলা করো। রাজনীতি করবা কিনা চিন্তাভাবনা করে দেখো। আমার কাছ থেকে উৎসাহ না পেয়ে সে চলে যায়। এই ঘটনা নির্বাচনের ৪ থেকে ৫ মাস আগে হবে।

তিনি আরও বলেন, যখন ক্ষমতাসীনদের চাপ বাড়তে লাগলো, তৎকালীন তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদও ঘোষণা দিয়ে দিলেন মেজর হাফিজ আলাদা নতুন দল গঠন করে নির্বাচনে যাবেন। পরদিন আমি সংবাদ সম্মেলন করেছি। তখন বলেছি আমি ৩২ বছর ধরে বিএনপিতে আছি। এই দলেই থাকবো। বিএনএম বা অন্য দলে যাওয়ার সম্ভাবনা নেই।

সাকিব আল হাসান তার সঙ্গে সাক্ষাত করেছিলেন, একথা অকপটে স্বীকার করলেও মেজর হাফিজ বিএনএমে যোগ দেননি, এমন দাবি করেন। তিনি বলেন, বিএনপির বিভিন্ন ইস্যুতে আমার দ্বিমত ছিলো।

মেজর (অব.) হাফিজ আরও বলেন, বাংলাদেশের রাজনীতি নোংরা। দেশে গণতন্ত্র নেই। নির্বাচনের সময় নানা কলাকৌশল গ্রহণ করা হয়। যারা ক্ষমতায় থাকে বিরোধীদের ভাগিয়ে এনে প্রতিপক্ষকে ক্ষতিগ্রস্ত করতে চায়।