https://bangla-times.com/
ঢাকাশুক্রবার , ৮ মার্চ ২০২৪
  • অন্যান্য

ময়মনসিংহ সিটি নির্বাচন, ভোট হবে ইভিএমে

ময়মনসিংহ প্রতিনিধি
মার্চ ৮, ২০২৪ ৬:১১ অপরাহ্ণ । ৭০ জন
Link Copied!

সফলভাবে সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করে ময়মনসিংহ সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন শনিবার (৯ মার্চ) সকাল ৮টা থেকে ভোট গ্রহন শুরু হবে। বিরতিহীনভাবে চলবে বিকেল ৪টা পর্যন্ত। ইভিএম পদ্ধতিতে এ ভোট গ্রহণ সম্পন্ন হবে।

শুক্রবার (৮ মার্চ) সকাল থেকে নগরীর সার্কিট হাউস মাঠ সংলগ্ন জিমনাসিয়াম হল থেকে নির্বাচনী দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তারা নির্বাচনী সরঞ্জাম নিয়ে কঠোর পাহাড়ায় ভোট কেন্দ্রে পৌঁচেছে। এদিকে নির্বাচন অবাধ, সুষ্টু ও নিরপেক্ষভাবে সম্পন্ন হবে করতে সব ধরনের প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছে বলে জানিযেছে নির্বাচন কমিশন ও প্রশাসনের দায়িত্বশীল কর্মকর্তারা।

সুষ্ঠুভাবে নির্বাচন সম্পন্ন হবে বলেও তারা আশা প্রকাশ করেছেন। ভোটাররাও আশা করছেন নির্বাচন হবে উৎসব মুখর। আইন শৃংখলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে গতকাল দিনে ও রাতে নগরীর বিভিন্ন এলাকায় ডিবি পুলিশসহ আইন শৃংখলা রক্ষাকারী বাহিনী সদস্যরা টহল দিয়েছেন।

রিটানিং অফিসার ও ময়মনসিংহ আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা মোহাম্মদ বেলায়েত হোসেন চৌধুরী বলেন, ইভিএম পদ্ধতিতে নির্বিঘেœ ভোট প্রদান করতে সকল ব্যবস্থা সম্পন্ন করা হয়েছে। ইভিএম কোন গোলযোগ দেখা দিলে প্রতিটি কেন্দ্রে অতিরিক্ত ইভিএম রাখা হয়েছে। এছাড়াও কারিগরি সহযোগিতা দেয়ার জন্যে প্রতি তিনটি কেন্দ্রের জন্যে বিশেষ প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত দক্ষ জনবল রাখা হয়েছে। এছাড়াও তিনি বলেন, কোন কেন্দ্রে যদি কোনো প্রার্থী নিয়ম ভঙ্গ করে ভোট গ্রহনে অনিয়ম করে তাহলে সেই কেন্দ্রে ভোট গ্রহন স্থগিত রাখা হবে।

শুক্রবার সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত নগরী জিমনেসিয়াম হলের সামনে স্থাপিত ৭টি বুথ থেকে ইভিএমসহ সরঞ্জাম বিতরণ করা হয়। আইন শৃংখলা বাহিনী ও ইভিএম গুলো সংশ্লিষ্ট কেন্দ্রের প্রিসাইডিং অফিসারের নিকট বুঝিয়ে দেয়া হয়। রিটানিং কর্মকর্তা জানান, প্রতিটি কেন্দ্রে যথাযথ নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।

তিনি বলেন, প্রতিটি সাধারণ কেন্দ্রে ৪ জন অস্ত্রধারী পুলিশ ও নারী সদস্যসহ ১২ জন আনসার সদস্য এবং প্রতিটি গ্ররুত্বপূর্ণ কেন্দ্রে ৫ জন অস্ত্রধারী পুলিশ ও নারী সদস্যসহ ১২ জন আনসার সদস্য দায়িত্ব পালন করবেন। এছাড়াও নির্বাচনী এলাকায় শান্তি শৃংখলা নিয়ন্ত্রণে রাখতে মোবাইল টিম ও স্ট্রাইকিং ফোর্স হিসেবে দায়িত্ব পালন করবে র‌্যাব, বিজিবি, আমর্ড পুলিশ ও আনসার সদস্য। প্রতিটি ওয়ার্ডে ও মোবাইল টিমের সাথে দায়িত্ব পালন করবেন ৩৩ জন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও ১১ জন জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ।

উল্লেখ্য, ময়মনসিংহ সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে মেয়র পদে ৫জন, ৩৩টি ওয়ার্ডের মধ্যে ৩২ টি ওয়ার্ডে
সাধারণ কাউন্সিলর পদে ১৪৯ জন, ১১টি সংরক্ষিত ওয়ার্ডে ৬৯ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্ধিতা করছেন। তবে সিটি করপোরেশনের ১৫ নং ওয়ার্ডে কাউন্সিলর পদে কোন প্রতিদ্ব›িদ্ব না থাকায় ফরহাদ আলম নামে এক কাউন্সিলর প্রার্থী বিনা প্রতিদ্বদ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন। নির্বাচনে ভোট কেন্দ্রের সংখ্যা ১২৮টি। ভোট কক্ষের সংখ্যা ৯৯০টি। নির্বাচনী দায়িত্ব পালন করবেন ৩ হাজার ২৫৩ জন কর্মকর্তা। মোট ভোটারের সংখ্যা ৩ লক্ষ ৩৬ হাজার ৪৯৬। এর মাঝে পুরুষ হলো ১ লক্ষ ৬৩ হাজার ৮৩২। মহিলা হলো ১ লক্ষ ৭২ হাজার ৬৫৫ জন। জেলা পুলিশ সুপার মাছুম আহম্মেদ ভুঞা বলেন, সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণভাবে নির্বাচন সম্পন্ন করতে তিন স্থরের নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহন করা হয়েছে। এতে ৬৪ হাজার আইন শৃংখলা রক্ষাকারী সদস্য মোতায়েন করা হয়েছে।