https://bangla-times.com/
ঢাকামঙ্গলবার , ৪ জুন ২০২৪
  • অন্যান্য

বৈধ ভোটের সরঞ্জাম পৌঁছাতে অবৈধ যানই ভরসা

আজিজুল হক সরকার, ফুলবাড়ী (দিনাজপুর)
জুন ৪, ২০২৪ ১১:৩৪ অপরাহ্ণ । ৮১ জন
Link Copied!

ফুলবাড়ী উপজেলার ভোট ৫ জুন। উপজেলার সড়কগুলোতে দাপিয়ে বেড়ানো অবৈধ যান হিসেবে ব্যবহৃত ট্রাক্টরগুলো ভোট এলেই বৈধ যান হিসেবে ব্যবহৃত হয়। এ অবৈধ যানবাহনের বিরুদ্ধে কখনো উচ্ছেদে অভিযান চালায় প্রশাসন।

আরও পড়ুন : মাতারবাড়ী তাপবিদ্যুৎকেন্দ্রের টেন্ডার প্রক্রিয়ায় অনিয়ম!

কিন্তু দিনাজপুরের ফুলবাড়ী উপজেলায় মঙ্গলবার (৪ মে) সেই ট্রাক্টর (ইট ও বালু বহন) চড়েই নির্বাচনী সরঞ্জাম নিয়ে ভোটকেন্দ্রে যাচ্ছেন পুলিশ ও আনসার সদস্যরা। উপজেলা নির্বাচনে এখন সেই ভটভটিই প্রশাসনের প্রধান ভরসা হয়ে দাঁড়িয়েছে। নির্বাচনের ব্যালট বাক্স থেকে শুরু করে অন্যান্য সরঞ্জামের সঙ্গে দায়িত্বপ্রাপ্ত পুলিশ ও আনসার সদস্যদের ভোটকেন্দ্রে পাঠানো হচ্ছে ভটভটিতে করে।

মঙ্গলবার (৪ মে) সকালে দিনাজপুরের ফুলবাড়ী উপজেলা চত্বরে গিয়ে দেখা যায়, উপজেলা চত্বরে সারি সারি দাঁড় করিয়ে রাখা হয়েছে অসংখ্য ট্রাক্টর। উপজেলা নির্বাচনের জন্য বিভিন্ন কেন্দ্রে নির্বাচনী সরঞ্জাম সরবরাহ করা নিয়ে ব্যস্ত সবাই।

নির্বাচন অফিস থেকে নির্বাচনী সরঞ্জাম বের করছেন সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা। এরপর মাইকে কেন্দ্রের নাম ও প্রিজাইডিং কর্মকর্তার নাম ধরে ডাকা হচ্ছে। সংশ্লিষ্ট কেন্দ্রের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তারা সেখানে গিয়ে মালামাল বুঝে নিচ্ছেন। এরপর তা তোলা হচ্ছে সংশ্লিষ্ট কেন্দ্রের জন্য নির্ধারিত ইট-বালু বহন করা অবৈধ ট্রাক্টরে। প্রতিটি ট্রাক্টরের সামনে বড় করে কাগজে লেখা রয়েছে কেন্দ্র নম্বর, কেন্দ্রের নাম ও দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তার মুঠোফোন নম্বর।

আরও পড়ুন : হজের খুতবা বাংলায় অনুবাদ করবেন ৪ বাংলাদেশি

ট্রাক্টর চালক হাসিফুল ইসলাম,রোস্তম আলী ,মো. রাশেদ এ বিষয়ে জানান, আমাদের দুই দিনের জন্য নির্বাচন কাজে কেন্দ্রের দূরত্ব অনুযায়ী তেল দিচ্ছেন। টাকা নাকি দেবেন ৫০০/৬০০। এটা দিলে খুবই কম হবে। ৬৩ কেন্দ্রের জন্য ৬৩টি ট্রাক নেয়া হয়েছে। শুধু ফুলবাড়ী উপজেলাতেই নয়, জেলার অন্যান্য উপজেলায়ও নির্বাচনী সরঞ্জাম ও সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের আনা-নেওয়ার কাজে ব্যবহার করা হচ্ছে ট্রাক্টর। পুলিশ ও আনসার সদস্যদের এবং তাদের মালামালও পরিবহন করা হচ্ছে এই ট্রাক্টর দিয়ে।

এসব বিষয়ে জানতে চাইলে ফুলবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি তদন্ত) মো. সফিকুল ইসলাম বলেন, জেলা প্রশাসকের নির্দেশেই ট্রাক্টরগুলো নির্বাচনী কাজে ব্যবহারের জন্য নেয়া হয়েছে। তাদের কিলোমিটার হিসেব করে তেল খরচ দেয়া হবে। নির্বাচনের সময় বেশি গাড়ির প্রয়োজন হয়। যার জন্য ট্রাক্টরগুলো ভাড়া করা হয়েছে।

ফুলবাড়ী উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা কাজল রানা ফোনে এ বিষয়ে বলেন, নির্বাচনের সময়ে ট্রাক্টর ব্যবহারের বিষয়ে কি আইন আছে তা আমার জানা নেই। তবে প্রতিটি যানবাহনের জন্য নির্ধারিত একটি বরাদ্দ রয়েছে। এটি জেলা কর্মকর্তা বলতে পারবেন।

ইউএনও (ভারপ্রাপ্ত) মুহাম্মদ জাফর আরিফ চৌধুরী এ প্রসঙ্গে বলেন, এসব অবৈধ যান ঠিক আছে। কিন্তু ইউনিয়নের সব স্থানে পৌঁছার মত এসব ট্রাক্টরই উপযুক্ত। বড় গাড়ি সব রাস্তায় যেতে পারবে না।

উল্লেখ্য, ৫ জুন ফুলবাড়ী উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। একটি পৌরসভা এবং সাতটি ইউনিয়নে ৬৩টি কেন্দ্রে ৪৩৫ বুথ। আর এদিন ভোট প্রয়োগ করবেন এক লাখ ৫২ হাজার ৪শত ৭৮জন ভোটার।