ঢাকা ০৪:৪৯ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২১ জুলাই ২০২৪, ৫ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ঈদের দিন চাঞ্চল্যকর রিফাত হত্যার আসামি সিয়াম গ্রেপ্তার

গাজীপুর প্রতিনিধি
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : ১১:০৩:৪৪ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪ ১৯ বার পড়া হয়েছে
বাংলা টাইমস অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

গাজীপুরের টঙ্গীতে গত ঈদের দিন খুন হওয়া তুরাগ নদী থেকে উদ্ধার চাঞ্চল্যকর রিফাত হত্যা মামলার পলাতক আসামী সিয়ামকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব-১। আসামী সিয়াম আহম্মেদ (১৯) ময়মনসিংহ জেলার মৃত মঞ্জু মিয়ার ছেলে।

রোববার (২৩ জুন) রাতে র‌্যাব-১ উত্তরা,পলাতক আসামি সিয়াম (১৯)কে আব্দুল্লাহপুর থেকে গ্রেপ্তার করে।

সোমবার (২৪ জুন) সকাল ৯ টায় র‌্যাব-১, সহকারী পুলিশ সুপার সহকারী পরিচালক (অপস্ এন্ড মিডিয়া অফিসার) মোঃ মাহফুজুর রহমান এ তথ্য জানান।

তিনি বলেন, আসামী সিয়াম আহম্মেদ (১৯) তাহার সহযোগী অন্যান্যরা ভিকটিম রিফাত মোল্লা (২২)’কে হত্যা করেছে মর্মে স্বীকার করেছে। গ্রেপ্তারকৃত আসামীর নিকট থেকে দুটি মোবাইল ফোন ও দুটি সিমকার্ড উদ্ধার করা হয়।

র্যাব জানায়, গত ১৭ জুন ঈদ-উল-আযহার দিন সন্ধ্যা ৬টা সময় রিফাত মোল্লা (২২) তার ফুফুর বাসা থেকে কোরবানির গরুর মাংস নিয়ে মা মোছলিমা আক্তারের বর্তমান বাসা-আদর্শ পাড়া বড়দেওড়া, মকবুলের বাড়ি, থানা-টঙ্গী পশ্চিম, গাজীপুরে যায়। একই দিন রাত সাড়ে ৮টায় রিফাত মোল্লা বাহিরে ঘুরতে যাওয়ার উদ্দেশ্যে তার মায়ের বাসা থেকে বাহির হন। একই তারিখ রাত অনুমান সাড়ে ৯টায় সময় মায়ের সহিত মোবাইলে সর্বশেষ কথা হয়। পরে একই তারিখ রাত ১০ টার পর রিফাত মোল্লার মোবাইল ফোন বন্ধ পায়। তাহার মা সম্ভাব্য সকল স্থানে খোঁজা-খুঁজি করে।। গত ১৮ জুন বিকাল ৪ টা সময় ভিকটিমের বন্ধু-বান্ধবের মাধ্যমে ভিকটিমের মা সংবাদ পান যে, তাহার ছেলেকে- কে বা কাহারা হত্যা করে লাশ গুম করার জন্য টঙ্গী পশ্চিম থানাধীন প্রত্যাশা ব্রীজের নীচে তুরাগ নদীতে ফেলে দেয়। পরে পুলিশ এসে লাশ উদ্ধার করে।

এ ঘটনায় ভিকটিমের মা মোছলিমা আক্তার টঙ্গী পশ্চিম থানায় একটি এজাহার দায়ের করেন। এই মামলায় ছায়া তদন্ত করে পুলিশ আসামী সিয়ামকে গ্রেপ্তার করে।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :

ঈদের দিন চাঞ্চল্যকর রিফাত হত্যার আসামি সিয়াম গ্রেপ্তার

সংবাদ প্রকাশের সময় : ১১:০৩:৪৪ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪

গাজীপুরের টঙ্গীতে গত ঈদের দিন খুন হওয়া তুরাগ নদী থেকে উদ্ধার চাঞ্চল্যকর রিফাত হত্যা মামলার পলাতক আসামী সিয়ামকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব-১। আসামী সিয়াম আহম্মেদ (১৯) ময়মনসিংহ জেলার মৃত মঞ্জু মিয়ার ছেলে।

রোববার (২৩ জুন) রাতে র‌্যাব-১ উত্তরা,পলাতক আসামি সিয়াম (১৯)কে আব্দুল্লাহপুর থেকে গ্রেপ্তার করে।

সোমবার (২৪ জুন) সকাল ৯ টায় র‌্যাব-১, সহকারী পুলিশ সুপার সহকারী পরিচালক (অপস্ এন্ড মিডিয়া অফিসার) মোঃ মাহফুজুর রহমান এ তথ্য জানান।

তিনি বলেন, আসামী সিয়াম আহম্মেদ (১৯) তাহার সহযোগী অন্যান্যরা ভিকটিম রিফাত মোল্লা (২২)’কে হত্যা করেছে মর্মে স্বীকার করেছে। গ্রেপ্তারকৃত আসামীর নিকট থেকে দুটি মোবাইল ফোন ও দুটি সিমকার্ড উদ্ধার করা হয়।

র্যাব জানায়, গত ১৭ জুন ঈদ-উল-আযহার দিন সন্ধ্যা ৬টা সময় রিফাত মোল্লা (২২) তার ফুফুর বাসা থেকে কোরবানির গরুর মাংস নিয়ে মা মোছলিমা আক্তারের বর্তমান বাসা-আদর্শ পাড়া বড়দেওড়া, মকবুলের বাড়ি, থানা-টঙ্গী পশ্চিম, গাজীপুরে যায়। একই দিন রাত সাড়ে ৮টায় রিফাত মোল্লা বাহিরে ঘুরতে যাওয়ার উদ্দেশ্যে তার মায়ের বাসা থেকে বাহির হন। একই তারিখ রাত অনুমান সাড়ে ৯টায় সময় মায়ের সহিত মোবাইলে সর্বশেষ কথা হয়। পরে একই তারিখ রাত ১০ টার পর রিফাত মোল্লার মোবাইল ফোন বন্ধ পায়। তাহার মা সম্ভাব্য সকল স্থানে খোঁজা-খুঁজি করে।। গত ১৮ জুন বিকাল ৪ টা সময় ভিকটিমের বন্ধু-বান্ধবের মাধ্যমে ভিকটিমের মা সংবাদ পান যে, তাহার ছেলেকে- কে বা কাহারা হত্যা করে লাশ গুম করার জন্য টঙ্গী পশ্চিম থানাধীন প্রত্যাশা ব্রীজের নীচে তুরাগ নদীতে ফেলে দেয়। পরে পুলিশ এসে লাশ উদ্ধার করে।

এ ঘটনায় ভিকটিমের মা মোছলিমা আক্তার টঙ্গী পশ্চিম থানায় একটি এজাহার দায়ের করেন। এই মামলায় ছায়া তদন্ত করে পুলিশ আসামী সিয়ামকে গ্রেপ্তার করে।