https://bangla-times.com/
ঢাকাবুধবার , ৫ জুন ২০২৪
  • অন্যান্য

আদালত অবমাননা/ এনবিআর চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মামলা

আদালত প্রতিবেদক
জুন ৫, ২০২৪ ৪:২৭ অপরাহ্ণ । ৫৮ জন
Link Copied!

আদালত অবমাননার অভিযোগে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) চেয়ারম্যান আবু হেনা মো. রহমাতুল মুনিমের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে। বুধবার (৫ জুন) হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় এই মামলা দায়ের করা হয়।

আরও পড়ুন : চার ঘণ্টায় ভোট পড়েছে ১৭.৩১ শতাংশ

২০২০ সালের ৮ নভেম্বর দেওয়া হাইকোর্টের রায় ও আদেশ না মানায় ১৯ মে) ইমেইলে এনবিআর চেয়ারম্যানকে আদালত অবমাননার নোটিশ নোটিশ পাঠানো হয়েছিলো।‌

সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ব্যারিস্টার ম্মোহাম্মদ হুমায়ুন কবির (পল্লব) ও ব্যারিস্টার মো. কাউছার ল’ অ্যান্ড লাইফ ফাউন্ডেশন ট্রাস্টের পক্ষে এ নোটিশ পাঠান। ফেসবুক, গুগল, অ্যামাজনসহ অন্যান্য ইন্টারনেটভিত্তিক সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের কাছ থেকে বাংলাদেশের আইন অনুযায়ী ট্যাক্স ও ভ্যাট আদায়ের নির্দেশ প্রতিপালন করে উচ্চ আদালতে অগ্রগতি প্রতিবেদন দাখিল না করায় এনবিআর চেয়ারম্যানকে আইনী নোটিশ পাঠানো হয়েছিলো। কিন্তু কার্যকর কোন ব্যবস্থা না নেওয়ায় তার বিরুদ্ধে হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় আদালত অবমাননার মামলা দায়ের করা হলো।

আরও পড়ুন : সরে দাঁড়ালেন মোদী! বদলে যেতে পারে সমীকরণ

সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ব্যারিস্টার হুমায়ুন কবীর (পল্লব) মামলার বিষয়টি বাংলা টাইমসকে নিশ্চিত করেছেন।

আইনী নোটিশে বলা হয়েছে, হাইকোর্টের রায়ে প্রদত্ত নির্দেশনা আগামী ১০ দিনের মধ্যে না প্রতিপালন না করলে তার বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার অভিযোগে হাইকোর্টে মামলা করা হবে।

এনবিআরের চেয়ারম্যানকে উদ্দেশ করে বলা হয়, আপনি সর্বোচ্চ আদালতের আদেশ পেয়েছেন এবং আদালতের আদেশ সম্পর্কে অবগত। আদালতের আদেশ মেনে চলতে আপনি বাধ্য। কিন্তু দেশের সর্বোচ্চ আদালতের নির্দেশ আমলে নেননি। আদালতের আদেশ গুরুতরভাবে লঙ্ঘন করেছেন। দেশের সর্বোচ্চ আদালতকে ইচ্ছাকৃতভাবে অবহেলা এবং অবমাননার জন্য আপনাকে বিচারের সম্মুখীন হতে হবে।

আরও পড়ুন : সাবেক আইজিপি বেনজীরের ৩ কালো হাত

ব্যারিস্টার ম্মোহাম্মদ হুমায়ন কবির (পল্লব) বাংলা টাইমসকে এ বিষয়ে বলেন, ২০২০ সালের ৮ নভেম্বর হাইকোর্ট তার প্রদত্ত রায়ে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডকে প্রতি ৬ মাস অন্তর ফেসবুক, গুগল ইউটিউব, ইয়াহু, আমাজনসহ অন্যান্য ইন্টারনেট ভিত্তিক সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ডোমেইন বিক্রি, বিজ্ঞাপন,লাইসেন্স ফিসহসব ধরনের লেনদেন থেকে মূসক, টার্ন ওভার কর ও সম্পূরক শুল্ক, ধারা ১৫ এর অধীন আরোপিত মূল্য সংযোজন কর এবং আয়কর প্রদানসহ সব ধরনের বকেয়া রাজস্ব আদায়ের বিবরণী হলফনামা আকারে হাইকোর্টে দাখিল করার জন্য নির্দেশ দিয়েছেন।

ব্যারিস্টার মোহাম্মদ হুমায়ন কবিরর (পল্লব), ব্যারিস্টার মোহাম্মদ কাউসারসহ সুপ্রিম কোর্টের কয়েকজন আইনজীবী জনস্বার্থে ২০১৮ সালের ৯ এপ্রিল হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় রিট করেন। বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর, রিটে অর্থ মন্ত্রণালয়ের সচিব,জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের চেয়ারম্যান, ফেসবুক, গুগল, ইয়াহুসহ মোট ১২ জনকে বিবাদী বিবাদী করা হয়।