https://bangla-times.com/
ঢাকামঙ্গলবার , ৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৪
  • অন্যান্য

হাত-পায়ে টেপ পেঁচিয়ে শিশুকে হত্যা, মা ও সৎমা আটক

ফেনী প্রতিনিধি
ফেব্রুয়ারি ৬, ২০২৪ ১০:৫৬ অপরাহ্ণ । ১৩২ জন
Link Copied!

ফেনীর পরশুরাম উপজেলায় হাত-পা ও মুখ বেঁধে লামিয়া আক্তার (৮) নামে এক শিশুকে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। মঙ্গলবার (৬ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে পরশুরাম পৌর এলাকার পশ্চিম বাঁশ পদুয়ায় এ ঘটনা ঘটে। এদিকে, এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য শিশুর মা ও সৎমাকে আটক করা হয়েছে

পরশুরাম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহাদাত হোসেন খান বলেন, প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে দাম্পত্য কলহের জেরে এ ঘটনা ঘটতে পারে। তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এলাকাবাসী জানান, মঙ্গলবার দুপুর দেড়টার দিকে হেলমেট পড়া দুই যুবক নুরুন্নবীর ভাড়া বাসায় এসে নিজেদের পল্লী বিদ্যুতের লোক দাবি করে দরজা খুলতে বলেন। এ সময় শিশুরা দরজা খুলে দিলে দুই যুবক ঘরের ভেতরে ঢুকে টেপ দিয়ে লামিয়ার হাত, মুখ ও পা বেঁধে হত্যা করেন। এ সময় তার বড় বোনফাতেমা আক্তার নিহা (১২) পালিয়ে পাশের বাসায় আশ্রয় নেয়।

লামিয়া ও নিহা দুই বোন একটি মাদরাসার শিক্ষার্থী। ঘটনার সময় শিশু দুটির বাবা নুরুন্নবী তার দ্বিতীয় স্ত্রীকেনিয়ে ফেনী শহরে ছিলেন। নুরুন্নবী পরশুরামের কলাবাগান এলাকার বাসিন্দা। তিনি বেশ কিছুদিন ধরে বাঁশপদুয়ার পশ্চিম পাড়ায় এয়ার আহাম্মদের বাসায় দ্বিতীয় স্ত্রী রেহানাকে নিয়ে থাকতেন।

নিহত লামিয়ার মা ও নুরুন্নবীর সাবেক স্ত্রী আয়েশা আক্তারের অভিযোগ, নুরুন্নবীর দ্বিতীয় স্ত্রীর লোকজন পরিকল্পিতভাবে তার মেয়ে লামিয়াকে হত্যা করেছে।